চাঁদপুর, শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২০ মাঘ ১৪২৯, ১১ রজব ১৪৪৪  |   ১৮ °সে
আজকের পত্রিকা জাতীয়আন্তর্জাতিকরাজনীতিখেলাধুলাবিনোদনঅর্থনীতি শিক্ষা স্বাস্থ্য সারাদেশ ফিচার সম্পাদকীয়
ব্রেকিং নিউজ
  •   কচুয়ায় রিয়া হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন
  •   কোস্টগার্ডের অভিযানে চাঁদপুর কোর্ট স্টেশনে ১৩শ’ কেজি জাটকা জব্দ
  •   ডাঃ সাজেদা পলিন নড়াইলের সিভিল সার্জন
  •   মতলবের আনন্দবাজারে অগ্নিকাণ্ডে পাঁচটি দোকান পুড়ে ২৫ লক্ষ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি
  •   ভাষার মাসের প্রথমদিনে বাংলায় রায় দিলেন হাইকোর্ট

প্রকাশ : ১৬ নভেম্বর ২০২২, ০০:০০

আমরা এশিয়ায় ৫ম শিল্প বিপ্লবের নেতৃত্ব দেব

-------------তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তফা জব্বার

আমরা এশিয়ায় ৫ম শিল্প বিপ্লবের নেতৃত্ব দেব
চাঁদপুর কণ্ঠ রিপোর্ট ॥

৫ম শিল্প বিপ্ল¬বের প্রধান দিক হল মানুষের সাথে প্রযুক্তির সরাসরি মিথষ্ক্রিয়া, যা শুধু শুধু প্রযুক্তির বৃদ্ধি নয়, বরং সামাজিক ও মানবিক উন্নয়নের দিকে পরিচালিত করে। আমি আশা করি বাংলাদেশের ডঃ মোঃ সবুর খানের নতুন এইউএপি সভাপতি হওয়ার সাথে সাথে জাতি প্রযুক্তিগতভাবে উপকৃত হবে এবং শিল্প বিপ্লবের পরবর্তী ধাপে লাফ দেবে বলে উল্লেখ করেছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তফা জব্বার। বাংলাদেশের ঢাকায় অ্যাসোসিয়েশন অব দ্য ইউনিভার্সিটিজ অব এশিয়া অ্যান্ড দ্য প্যাসিফিক (এইউএপি)-এর তিন দিনব্যাপী ১৫তম সাধারণ সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনের উদ্বোধনী অধিবেশনে তিনি এসব কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০২১ সালের মধ্যে বিশ্বে ডিজিটাল বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার প্রকল্প হাতে নিয়েছিলেন, যা আমরা অর্জন করেছি এবং প্রযুক্তিকে সামাজিক ও মানবিক উন্নয়ন নিশ্চিত করতে আমাদের এখন শিল্প বিপ্লব ৫.০-এ যেতে হবে, যা আগামীতে একটি উন্নত বাংলাদেশের দিকে নিয়ে যাবে’, যোগ করেন জনাব মোস্তফা জব্বার। একই দিনে এইউএপির নতুন সভাপতি হিসেবে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ড. মোঃ সবুর খানকে সকলে অভিনন্দিত করেন।

ডক্টর ফার্নান্দো লিওন-গার্সিয়া, ইন্টারন্যাশনাল অ্যাসোসিয়েশন অফ ইউনিভার্সিটি প্রেসিডেন্টস-আইএইউপি (২০২১-২০২৪)-এর সভাপতি, এই আয়োজনের প্রধান বক্তা ছিলেন। ডঃ গার্সিয়া অনেক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষাগত নেতাদের উপর একটি আইএইউপি সমীক্ষার সামগ্রিক ফলাফলগুলি গণনা করেছেন : বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠান সফলভাবে শিক্ষামূলক প্রোগ্রামগুলির ধারাবাহিকতা প্রদানের জন্য উপযুক্ত শিক্ষাগত, প্রযুক্তিগত এবং স্বাস্থ্য-সম্পর্কিত ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে, প্রায়শই প্রযুক্তি-চালিত দূরশিক্ষায় স্থানান্তরিত হয়, এবং এখন বাইফোকাল নেতৃত্ব (স্বল্পমেয়াদী এবং দীর্ঘমেয়াদী লক্ষ্য, শারীরিক এবং অনলাইন শিক্ষা, উভয়ই), এবং পাশাপাশি দক্ষতা ভিত্তিক শিক্ষার সাথে মিশ্রিত গুণগত শিক্ষার দিকে এগিয়ে যাওয়া। তিনি একাডেমিক ব্যাংক অফ ক্রেডিট এবং আরও ব্যক্তিগতকৃত প্রোগ্রাম এবং শেখার বিষয়ে কথা বলেছেন, এগিয়ে যাচ্ছেন।

অ্যাসোসিয়েশন অব দ্য ইউনিভার্সিটিস অব এশিয়া অ্যান্ড দ্য প্যাসিফিক (এইউএপি)-এর দ্বিতীয় দিনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শুরু হয়েছে বাংলাদেশের জাতীয় সঙ্গীতের মধ্য দিয়ে। প্রফেসর ড. রিকার্ডো পি. পামা, সেক্রেটারি জেনারেল, এইউএপি, ঢাকার রেডিসন ব্লু ওয়াটার গার্ডেন হোটেলে দ্বিতীয় দিনে বিশ্বের ৩২টি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় ৬০ জন প্রতিনিধিকে স্বাগত জানান। ড. মোঃ সবুর খান, এইউএপি-এর প্রথম ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান, ডিআইইউ, বাংলাদেশ এবং আগত নতুন এইউএপি- সভাপতি এবং ড. পিটার পি. লরেল-এর বিদায়ী সভাপতি বক্তব্য রাখেন।

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি একটি ভিডিও বার্তার মাধ্যমে অতিথিদের স্বাগত জানান। তিনি মহামারী মোকাবিলায় বাংলাদেশের উচ্চ শিক্ষা কীভাবে মিশ্রিত শিক্ষার বিকাশ ঘটিয়েছে সে বিষয়ে কথা বলেন এবং ডঃ সবুর খানকে তার নতুন শিক্ষার জন্য অভিনন্দন জানান।

তারপরে সেশনগুলি বিভিন্ন কেস-স্টাডিজ এবং বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের সেরা অনুশীলনের উপর দৃষ্টি নিবদ্ধ করে, বিশেষ করে ব্লেন্ডেড লার্নিং, আন্তর্জাতিকীকরণ, ডিজিটাল লার্নিং, প্রকল্প ভিত্তিক শিক্ষা এবং ভবিষ্যতের বিশ্ববিদ্যালয়ের বৈশিষ্ট্যগুলো কী হতে পারে, এগুলো নিয়ে আলোচেনা হয়।

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়