চাঁদপুর, সোমবার ১৩ জুলাই ২০২০, ২৯ আষাঢ় ১৪২৭, ২১ জিলকদ ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • মতলব উত্তরের আমিরাবাদ এলাকায় মেঘনা-ধনাগোদা সেচ প্রকল্পের মুল বেড়িবাঁধে মেঘনার আকস্মিক ভাঙ্গন শুরু
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৭২-সূরা জিন্ন্


২৮ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী


 


১। বল, আমার প্রতি ওহী প্রেরিত হইয়াছে যে, জিন্নদের একটি দল মনোযোগ সহকারে শ্রবণ করিয়াছে এবং বলিয়াছে, 'আমরা তো এক বিস্ময়কর কুরআন শ্রবণ করিয়াছি,


২। যাহা সঠিক পথনির্দেশ করে; ফলে আমরা ইহাতে বিশ্বাস স্থাপন করিয়াছি। আমরা কখনও আমাদের প্রতিপালকের কোন শরীক স্থির করিব না,


 


 


প্রার্থনা ও প্রশংসা এই দুটো জিনিস স্বয়ং বিধাতাও পছন্দ করেন।


-সুইডেন বাগ।


 


 


 


 


 


ধর্মের পর জ্ঞানের প্রধান অংশ হচ্ছে মানবপ্রেম-আর পাপী পুণ্যবান নির্বিশেষে মানুষের মঙ্গল সাধন।


 


 


ফটো গ্যালারি
মাদক বিরোধী টাস্কফোর্সের অভিযান আটক ৩ মাদক সেবনকারীর কারাদণ্ড
স্টাফ রিপোর্টার
১৩ জুলাই, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুরে মাদকদ্রব্যসহ পৃথক স্থানে ৩ মাদক ব্যবসায়ী টাস্কফোর্সের অভিযানে আটক হলে তাদেরকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। ১১ই জুলাই শনিবার এদেরকে শহরের পৃথক স্থান হতে আটক হয়।



আটককৃতদের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মঞ্জুরুল মোর্শেদ ভ্রাম্যমাণ আদালতে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা ও অর্থদ- প্রদান করে তাদের কারাগারে প্রেরণ করেন।



মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর চাঁদপুর কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, চাঁদপুর সদর উপজেলার মধ্য গুণরাজদী হতে অ্যামফিটামিন যুক্ত ইয়াবা ট্যাবলেট সেবনরত অবস্থায় ২৫ পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ ভূঁইয়া বাড়ির মোঃ চুন্নু ভূঁইয়ার ছেলে অপু ভূঁইয়া (২৩) এবং মধ্য গুণরাজদী গাজী বাড়ির মোঃ আলী খানের ছেলে মোঃ শাওন (২২) উভয়কেই মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ২০১৮ অনুযায়ী এক বছর করে বিনাশ্রম কারাদ- এবং প্রত্যেককে ৮ হাজার ৫শ' টাকা করে মোট ১৭ হাজার টাকা অর্থদ- প্রদান করা হয়েছে।



অপরদিকে শহরের বড় স্টেশন যমুনা রোড গাজী বাড়ির রশিদ আলী গাজীর ছেলে মোঃ হানিফ (২৪) কে গাঁজা সেবনের জন্য একই আইনে সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদ- এবং ১শ' টাকা অর্থদ- আদায় করা হয়েছে। এদেরকে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ইন্সপেক্টর মোঃ মজিবুর রহমান ও সঙ্গীয় পুলিশ ফোর্স কর্তৃক আটক করা হয়।



মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর চাঁদপুরের সহকারী পরিচালক একেএম দিদারুল আলম জানান, আসামীগণ দীর্ঘদিন মাদক (ইয়াবা) ও গাঁজা সেবন করে আসছে মর্মে স্বেচ্ছায় দোষ স্বীকার করে ক্ষমা প্রার্থনা করে। তাই ভ্রাম্যমাণ আদালতে তাদের লঘুদ- দেয়া হয়েছে।



অভিযানকালে সহযোগিতা করেন মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ইন্সপেক্টর মোঃ মজিবুর রহমান, পেশকার মোঃ জহিরুল ইসলাম, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ফোর্স এবং পুলিশ সদস্যবৃন্দ।



 



 


এই পাতার আরো খবর -
করোনা পরিস্থিতি
বাংলাদেশ বিশ্ব
আক্রান্ত ৩,৩৯,৩৩২ ২,৯২,০১,৬৮৫
সুস্থ ২,৪৩,১৫৫ ২,১০,৩৫,৯২৬
মৃত্যু ৪,৭৫৯ ৯,২৮,৬৮৬
দেশ ২১৩
সূত্র: আইইডিসিআর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
আজকের পাঠকসংখ্যা
১১৬৭৩৭৯
পুরোন সংখ্যা