চাঁদপুর, শনিবার ২৩ মে ২০২০, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ২৯ রমজান ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • মতলব উত্তরের আমিরাবাদ এলাকায় মেঘনা-ধনাগোদা সেচ প্রকল্পের মুল বেড়িবাঁধে মেঘনার আকস্মিক ভাঙ্গন শুরু
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৯-সূরা হাক্কা :


৫২ আয়াত, ২ রুকু, মক্কী


১৬। এবং আকাশ বিদীর্ণ হইয়া যাইবে আর সেই দিন উহা বিশ্লিষ্ট হইয়া পরিবে।


১৭। ফিরিশ্তাগণ আকাশের প্রান্তদেশে থাকিবে এবং সেই দিন আটজন ফিরিশ্তা তোমার প্রতিপালকের আরশকে ধারণ করিবে তাহাদের ঊধর্ে্ব।


 


বেদনা হচ্ছে পাপের শাস্তি।


-বুদ্ধদেব।


 


 


স্বভাবে নম্রতা অর্জন কর।


 


ফটো গ্যালারি
চাঁদপুর সদরের সাড়ে তিন শতাধিক প্রাথমিক শিক্ষক বৈশাখী ভাতা ও ঈদ বোনাস থেকে বঞ্চিত
২৩ মে, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর সদর উপজেলা শিক্ষা অফিসের অদক্ষতার কারণে প্রাথমিক শিক্ষকরা বৈশাখী ভাতা পাননি বলে জানা গেছে। এখন আবার ঈদ-বোনাস পাবে কি না সেটি নিয়েও অনিশ্চয়তা দেখা যাচ্ছে। বৈশাখী ভাতা না পাওয়া বঞ্চিত প্রায় তিনশ' পঞ্চাশ জনের অধিক শিক্ষকের পক্ষে কয়েকজন প্রতিনিধি এরই মধ্যে উপজেলা শিক্ষা অফিসে যোগাযোগ করেছেন। জানা গেছে, সময় মত চাঁদপুর সদর উপজেলা শিক্ষা অফিস থেকে সংশ্লিষ্ট অফিসে বরাদ্দ চাওয়া হয়নি। তাই তাদের বৈশাখী ভাতা থেকে বঞ্চিত করা হয়েছে।



এদিকে জেলার অন্যান্য ৭টি উপজেলার প্রাথমিক শিক্ষকরা বৈশাখী ভাতা সময়মত পেতে তাদের কোনো সমস্যাই হয়নি। এখন ঈদ-উল ফিতর-এর বোনাস পেয়েছেন বলে জানা গেছে। এ ব্যাপারে চাঁদপুর সদর উপজেলা শিক্ষা অফিসারের মতামত হলো 'বাজেট বরাদ্দের জন্য পাঠানো হয়েছে' এবং চাঁদপুর জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারের বক্তব্য হলো 'শীঘ্রই ঈদ বোনাস ঈদের আগে পেয়ে যাবেন।' এ ব্যাপারে বঞ্চিত শিক্ষকরা গত কয়েকদিন যাবৎ জেলা প্রশাসকের অফিস, এডিসি (শিক্ষা) এবং করোনা ভাইরাস মহামারি ও দুর্যোগ উপলক্ষে সাধারণ মানুষের দুঃখ-কষ্ট লাঘবে প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক প্রেরিত চাঁদপুর জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত সিনিয়র সচিব শাহ কামালের নিকট মুঠোফোনে তাদের বৈশাখী ভাতা ও তাদের ঈদ বোনাসের জন্য আবেদন করেন। শিক্ষকরা তা দ্রুত পাবেন বলে তাঁরা জানান। গত বুধবার বেলা ১টায় বাজেট বরাদ্দ আসলেও হিসাবরক্ষণ অফিসের বিভিন্ন প্রক্রিয়া শেষে ব্যাংকে জমা দেওয়া হয় দুপুর আড়াইটায়। এটা সংশ্লিষ্ট সূত্র থেকে জানানো হয়। এমতাবস্থায় শিক্ষকরা কোনো ভাতাই উত্তোলন করতে পারেন নি। অনেকেই ব্যাংকে গিয়ে ফেরৎ চলে আসেন। এখন থেকে আগামী ২৬/০৫/২০২০ তারিখ পর্যন্ত ঈদ ছুটি উপলক্ষে সংশ্লিষ্ট ব্যাংক বন্ধ থাকবে বলে জানা গেছে। এ ব্যাপারে সদর উপজেলা শিক্ষা অফিসার নাজমা বেগমের সাথে আলাপকালে তিনি মুঠোফোনে জানান, নির্দিষ্ট সময়ে ব্যাংকে টাকা না আসার কারণে শিক্ষকরা সময়মতো বেতনভাতা ও ঈদ বোনাস তুলতে পারেননি। তবে ঈদের পর যেদিনই ব্যাংক খুলবে সেদিনই সম্মানিত শিক্ষকগণ তাদের বোনাস, ভাতা তুলতে পারবেন।



 


এই পাতার আরো খবর -
করোনা পরিস্থিতি
বাংলাদেশ বিশ্ব
আক্রান্ত ৩,৩৯,৩৩২ ২,৯২,০১,৬৮৫
সুস্থ ২,৪৩,১৫৫ ২,১০,৩৫,৯২৬
মৃত্যু ৪,৭৫৯ ৯,২৮,৬৮৬
দেশ ২১৩
সূত্র: আইইডিসিআর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
আজকের পাঠকসংখ্যা
২১৭৩৩৬
পুরোন সংখ্যা