চাঁদপুর, বৃহস্পতিবার ২২ আগস্ট ২০১৯, ৭ ভাদ্র ১৪২৬, ২০ জিলহজ ১৪৪০
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৪-সূরা কামার


৫৫ আয়াত, ৩ রুকু, মক্কী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


 


 


 


assets/data_files/web

একজন ভাগ্যবান ব্যক্তি সাদা কাকের মতোই দুর্লভ। -জুভেনাল।


 


 


মানুষ যে সমস্ত পাপ করে আল্লাহতায়ালা তার কতকগুলো মাপ করে থাকেন, কিন্তু যে ব্যক্তি মাতা-পিতার অবাধ্যতাপূর্ণ আচরণ করে, তার পাপ কখনো ক্ষমা করেন না।


 


 


ফটো গ্যালারি
মতলবের খর্গপুরে জোরপূর্বক সম্পত্তি দখলের অভিযোগ
নিজস্ব প্রতিনিধি
২২ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


মতলব দক্ষিণে খরিদকৃত ও পৈত্রিকসূত্রে মালিকানা জায়গা জোরপূর্বক জবরদখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার নায়েরগাঁও দক্ষিণ ইউনিয়নের খর্গপুর গ্রামের আব্দুল প্রধানিয়া বাড়ির মৃত চাঁন মিয়া প্রধানের ছেলে মোঃ খলিলুর রহমানের বিরুদ্ধে এ অভিযোগ উঠেছে।



জানা যায়, উপজেলার নায়েরগাঁও দক্ষিণ ইউনিয়নের খর্গপুর গ্রামের মৃত মোঃ ছিদ্দিকুর রহমানের ছেলে মোঃ হেলাল উদ্দিন একই বাড়ির মোঃ ইউনুছ মিয়ার ছেলে মনির হোসেনের কাছ থেকে ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বর মাসের ২৭ তারিখে খর্গপুর মৌজায় বিএস খতিয়ানের ১৩৭২ (বাড়ি) এবং ১৪৬২ (নাল) দাগে মোট ১৫ শতাংশ জায়গা ক্রয় করেন। হেলাল উদ্দিন জায়গা খরিদ করার পর ২০১৮ সালের শেষের দিকে জায়গা পরিমাপ করে ভোগদখল করতে গেলে খলিলুর রহমান বাধার সৃষ্টি করে। পরে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদে অভিযোগ করলে ইউপি চেয়ারম্যান উভয় পক্ষকে নিয়ে সমস্যাটির সমাধান করে দেন। কিন্তু খলিলুর রহমান এ সমাধানকে তোয়াক্কা না করে পুনরায় জোরপূর্বক জায়গা দখল করার পাঁয়তারা করছে।



মোঃ হেলাল উদ্দিন জানান, পৈত্রিক সূত্রে পাওয়া এবং বিএস খতিয়ানে মালিক হয়ে দীর্ঘদিন ভোগদখল করা সম্পত্তিতে বাঁশের বেড়া দিয়ে বিভিন্ন প্রজাতির গাছের চারা রোপণ করার পর সেই বেড়া ও গাছের চারা ভেঙ্গে ফেলে জোরপূর্বক জায়গা দখল করার চেষ্টা করছে খলিলুর রহমান।



হেলাল উদ্দিন আরও জানান, বিগত সময়ে ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান সাহেব সালিসি বৈঠকের মাধ্যমে সম্পত্তিগত ঝামেলার বিষয়টি মীমাংসা করে খলিলুর রহমানকে আমার জায়গায় থাকা ঘর সরিয়ে দিতে নির্দেশ দেন। কিন্তু খলিলুর রহমান এখনো ঘর সরিয়ে নেয়নি। এ বিষয়ে মোঃ হেলাল উদ্দিন মতলব দক্ষিণ থানায় একটি অভিযোগ দিলে থানার এএসআই প্রশান্ত ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।



জোরপূর্বক জায়গা দখলের বিষয়ে অভিযুক্ত খলিলুর রহমান বলেন, আমি জায়গা দখল করি নাই। তবে এখনো আমাদের জায়গা বণ্টন করা হয়নি। আমরা পূর্বের ন্যায় ভোগ দখল করছি।



এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম মামুন মৃধা জানান, হেলাল উদ্দিন অভিযোগ করলে উভয় পক্ষকে ডেকে সালিসি বৈঠকের মাধ্যমে বিষয়টি মীমাংসা করে দিয়েছি। খলিলুর রহমানকে বিরোধপূর্ণ স্থান থেকে ঘর সরিয়ে দিতে বলা হয়েছে।



মতলব দক্ষিণ থানার এএসআই প্রশান্ত জানান, অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। উভয় পক্ষকে স্ব-স্ব স্থানে থাকার জন্য নির্দেশনা দিয়েছি।



 



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
১৬৩৯২৪
পুরোন সংখ্যা