চাঁদপুর, সোমবার ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬, ১৩ শাওয়াল ১৪৪০
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৩-সূরা নাজম


৬২ আয়াত, ৩ রুকু, মক্কী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


২৪। মানুষ যাহা চায় তাহাই কি সে পায় ?


২৫। বস্তুত ইহকাল ও পরকাল আল্লাহরই।


২৬। আকাশে কত ফিরিশতা রহিয়াছে ; উহাদের সুপারিশ কিছুমাত্র ফলপ্রসূ হইবে না, তবে আল্লাহর অনুমতির পর; যাহার জন্য ইচ্ছা করেন ও যাহার প্রতি তিনি সন্তুষ্ট।


 


 


 


assets/data_files/web

মনের যাতনা দেহের যাতনার চেয়ে বেশি। -উইলিয়াম হ্যাজলিট।


 


যদি মানুষের ধৈর্য থাকে তবে সে অবশ্য সৌভাগ্যশালী হয়।


 


ফটো গ্যালারি
চাঁদপুর কণ্ঠে সংবাদ প্রকাশের পর নিজ খরচে অবৈধ স্থাপনা অপসারণের নির্দেশ
মতলব ব্যুরো ॥
১৭ জুন, ২০১৯ ০২:৫০:০৪
প্রিন্টঅ-অ+


মতলব পৌর এলাকার বরদিয়া আড়ং বাজার সংলগ্ন মতলব-বাবুরহাট-পেন্নাই সড়কের পাশে প্রশাসনের চোখকে ফাঁকি দিয়ে ভূমিদস্যু মোঃ বিল্লাল হোসেন কর্তৃক নির্মিত অবৈধভাবে দোকান নিজ খরচে অপসারণের জন্যে নির্দেশ দিয়েছেন মতলব দক্ষিণ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নুশরাত শারমিন। গত ১৩ জুন এ নির্দেশ প্রদান করেন।

তাঁর নির্দেশনা সূত্রে জানা যায়, মতলব দক্ষিণ উপজেলাধীন ১৮০নং মোবারকদী মৌজার ১নং খতিয়ানভুক্ত ৩৪০ দাগের খাল শ্রেণির ২.১২-এর ভূমির মধ্যে (২০ফুট*৫৫ফুট) ১১০০ বর্গফুট ভূমিতে সরকারের বিনাঅনুমতিতে বেআইনীভাবে ক্ষমতা অপব্যবহার করে পানির স্বাভাবিক গতি প্রবাহে বাধা সৃষ্টি করাসহ সরকারি সম্পত্তি আত্মসাতের উদ্দেশ্যে পাকা ইমারত নির্মাণ করেছেন মর্মে ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা সূত্রে ৮৮ স্মারকে প্রতিবেদন দাখিল করেন। সরকারি সম্পত্তি অবৈধভাবে দখল ও খালের পানির স্বাভাবিক গতি প্রবাহ বাধার সৃষ্টি করা শাস্তিযোগ্য অপরাধ। অবৈধ ইমারত নির্মাণের কারণে আগামী ২০জুনের মধ্যে নির্মিত স্থাপনা নিজ খরচে অপসারণক্রমে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি)র নিকট লিখিত জবাব দাখিলের জন্যে নির্দেশ প্রদান করেছেন। অন্যথায় ভূমিদস্যু মোঃ বিল্লাল হোসেনের বিরুদ্ধে সরকারি এবং স্থানীয় কর্তৃপক্ষ ভূমি ও ইমরাত (দখল ও পুনরুদ্ধার) অধ্যাদেশ ১৯৭০ (অধ্যাদেশ ২৪/১৯৭০) মোতাবেক উচ্ছেদ কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে। বিবিধ উচ্ছেদ মামলা নং- ০১/২০১৮-২০১৯।

উল্লেখ্য, গত ১২ জুন ‘মতলব-বাবুরহাট রাস্তার পাশে সরকারি জায়গায় অবৈধভাবে দোকান নির্মাণ ॥ উচ্ছেদ মামলা’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। সংবাদ প্রকাশের পর মতলব পৌর ভূমি অফিসে ভূমি সহকারী কর্মকর্তা মোঃ হাবিব উল্লাহ পাটোয়ারীর দৃষ্টিগোচর হলে সরজমিনে পরিদর্শন করে তিনি উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি)র নিকট প্রতিবেদন দাখিল করেন।

মতলব পৌর ভূমি অফিসে ভূমি সহকারী কর্মকর্তা মোঃ হাবিব উল্লাহ পাটোয়ারী বলেন, স্যারের নিকট (সহকারী কমিশনার, ভূমি) লিখিত প্রতিবেদনের প্রেক্ষিতে নিজ খরচে নির্মিত স্থাপনা অপসারণ করে লিখিত জবাব দাখিলের জন্যে নির্দেশ প্রদান করেছেন।

সহকারী কমিশনার (ভূমি) নুশরাত শারমিন বলেন, স্থাপনা নির্মাণকারীকে নিজ খরচে নির্মিত স্থাপনা উচ্ছেদের জন্যে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। তিনি নির্মিত স্থাপনা সরিয়ে না নিলে আইন মোতাবেক নির্মিত স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (মোঃ শাহিদুল ইসলাম) স্যারসহ  আমি এ উপজেলায় সরকারি ভূমিতে যাতে কোনো অবৈধ দখলদার না থাকে সে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আজকের পাঠকসংখ্যা
৬৪৮৮৮১
পুরোন সংখ্যা