চাঁদপুর, শনিবার ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৬ ফাল্গুন ১৪২৬, ৪ রজব ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • মতলব উত্তরের আমিরাবাদ এলাকায় মেঘনা-ধনাগোদা সেচ প্রকল্পের মুল বেড়িবাঁধে মেঘনার আকস্মিক ভাঙ্গন শুরু
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৫-সূরা তালাক


১২ আয়াত, ২ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


২। উহাদের 'ইদ্দাত পূরণের কাল আসন্ন হইলে তোমরা হয় যথাবিধি উহাদিগকে রাখিয়া দিবে, না হয় উহাদিগকে যথাবিধি পরিত্যাগ করিবে এবং তোমাদের মধ্য হইতে দুইজন ন্যায়পরায়ণ লোককে সাক্ষী রাখিবে; আর তোমরা আল্লাহর জন্য সঠিক সাক্ষ্য দিবে। ইহা দ্বারা তোমাদের মধ্যে যে কেহ আল্লাহ ও আখিরাতে বিশ্বাস করে তাহাকে উপদেশ দেওয়া হইতেছে। যে কেহ আল্লাহকে ভয় করে আল্লাহ তাহার পথ করিয়া দিবেন।


 


 


 


ঘুম পরিশ্রমী মানুষকে সৌন্দর্য প্রদান করে।


-টমাস ডেককার।


 


 


 


 


নামাজ হৃদয়ের জ্যোতি, সদ্কা (বদান্যতা) উহার আলো এবং সবুর উহার উজ্জ্বলতা।


 


 


ফটো গ্যালারি
প্রকৌঃ মোহাম্মদ হোসাইন আইইবির সহ-সভাপতি নির্বাচিত
কামরুজ্জামান টুটুল
২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউট বাংলাদেশ (আইইবি)-এর দ্বি-বার্ষিক মেয়াদকালের জন্যে বিপুল ভোটে হেডকোয়ার্টারের ভাইস প্রেসিডেন্ট (একাডেমিক এন্ড ইন্টারন্যাশনাল) পদে নির্বাচিত হয়েছেন হাজীগঞ্জের কৃতী সন্তান প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন। দেশের প্রাচীনতম ও বৃহৎ এ পেশাজীবী প্রতিষ্ঠানের গত ২৭ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে সারাদেশে আইইবির ১৮টি কেন্দ্র ও ৩২টি উপকেন্দ্রে একযোগে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।



প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন ২৫ বছর যাবৎ আইইবির সাথে সম্পৃক্ত। তিনি বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ও আইবিএ এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এমবিএ ডিগ্রি লাভ করেন। পরবর্তীতে তিনি ডেনমার্ক থেকে Institutional and HRD (IHRD) বিষয়ে স্নাতকোত্তর ডিপ্লোমা ডিগ্রি অর্জন করেন।



প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন 'বাংলাদেশ ইঞ্জিনিয়ার্স ক্লাব'-এর প্রতিষ্ঠাতা প্রেসিডেন্ট ও বুয়েট ৮৮ ক্লাব-এর প্রেসিডেন্ট ছিলেন। এছাড়াও উত্তরা ১৪নং সেক্টর সোসাইটি পরিচালনা কমিটিরও একজন সফল প্রেসিডেন্ট ছিলেন। তিনি বাংলাদেশের শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপীঠ বুয়েট এলামনাইয়ের একজন ট্রাস্টি।



প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন একজন বিদ্যুৎকর্মী হিসেবে ১৯৯৬ সালে সহকারী পরিচালক পদে প্রথম পাওয়ার সেলে যোগদান করেন। এরপরে তিনি বিভিন্ন মেয়াদে উপ-পরিচালক এবং বর্তমানে মহাপরিচালকের দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি সেনাকল্যাণ সংস্থার এমআইএস ডিভিশনের প্রতিষ্ঠাতা ব্যবস্থাপক ছিলেন। বিদ্যুৎখাতের মহাপরিকল্পনা প্রণয়ন, বিদ্যুৎখাত উন্নয়নে বিভিন্ন নীতিমালা, আইন প্রণয়ন এবং বিদ্যুৎখাতের বিভিন্ন সংস্থা/কোম্পানিসমূহকে কারিগরী সহায়তা প্রদান করাই পাওয়ার সেলের দায়িত্ব। আর সেই পাওয়ারসেলের মহাপরিচালক পদে তিনি দায়িত্ব পালন করে আসছেন।



প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন বর্তমানে জাতিসংঘের এসক্যাপের জ্বালানি কমিটির চেয়ারম্যান। তিনি সার্ক এনার্জি সেন্টারের বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করেন এবং এর গভর্নিং বোর্ডের একজন সদস্য। ২০১০ সালে বাংলাদেশ ও ভারতের সাথে বিদ্যুৎখাতে সহযোগিতার জন্যে যে ঐতিহাসিক সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর হয়েছে, তিনি তার প্রথম অনুস্বাক্ষরকারী। বর্তমানে তিনি বাংলাদেশ-ভারত এবং বাংলাদেশ-নেপাল বিদ্যুৎখাত সহযোগিতা সম্পর্কিত যৌথ স্টিয়ারিং কমিটির একজন সদস্য।



প্রকৌশলী মোহাম্মদ হোসাইন কর্মজীবনের পাশাপাশি নিজ এলাকা তথা হাজীগঞ্জ-শাহরাস্তি উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষাসামগ্রী বিতরণ, সকল ধর্মের অসহায় ও দুঃস্থদের সহায়তা, শীতবস্ত্র, সেলাই মেশিন বিতরণসহ নানা সহায়তা করে আসছেন।



 



 


এই পাতার আরো খবর -
করোনা পরিস্থিতি
বাংলাদেশ বিশ্ব
আক্রান্ত ৩,৩৯,৩৩২ ২,৯২,০১,৬৮৫
সুস্থ ২,৪৩,১৫৫ ২,১০,৩৫,৯২৬
মৃত্যু ৪,৭৫৯ ৯,২৮,৬৮৬
দেশ ২১৩
সূত্র: আইইডিসিআর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
আজকের পাঠকসংখ্যা
২৪৮৬৬০
পুরোন সংখ্যা