চাঁদপুর, সোমবার ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৪ ফাল্গুন ১৪২৬, ২২ জমাদিউস সানি ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬৪-সূরা তাগাবুন


১৮ আয়াত, ২ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


৬। উহা এইজন্য যে, উহাদের নিকট উহাদের রাসূলগণ স্পষ্ট নিদর্শনসহ আসিত তখন উহারা বলিত, 'মানুষই কি আমাদিগকে পথের সন্ধান দিবে? অতঃপর উহারা কুফরী করিল ও মুখ ফিরাইয়া লইল। কিন্তু ইহাতে আল্লাহর কিছু আসে যায় না; আল্লাহ অভাবমুক্ত, প্রশংসার্হ।


 


 


 


মা-বাবাকে ভালোবাসা শ্রদ্ধা করা প্রকৃতির প্রথম আইন।


-ভ্যালিরিয়াস ম্যাঙ্য়িাম।


 


 


যে মুসলমান অবৈধ (হারাম) বস্তু হইতে দূরে থাকে ও ভিক্ষাবৃত্তি হইতে দূরে থাকে, যাহার শুধু একটি পরিবার (স্ত্রী), খোদাতায়ালা তাহাকেই ভালোবাসেন।


 


 


 


ফটো গ্যালারি
'ইসলামিক ফাউন্ডেশনের লাইব্রেরিতে এখনো মওদুদীর তাফহীমুল কোরআন পাওয়া যায়'
চাঁদপুর কণ্ঠ রিপোর্ট
১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


ইসলামিক ফাউন্ডেশন এখনো জামাতী ভাবধারায় চলছে। তাদের লাইব্রেরিতে এখনো মওদুদী ও গোলাম আযমের বই রয়েছে। বিশেষ করে মওদুদীর বিতর্কিত তাফসির গ্রন্থ 'তাফহীমুল কোরআন' এখনো ইসলামিক ফাউন্ডেশনের লাইব্রেরিতে দেখা যাচ্ছে। এতে বুঝা যাচ্ছে ইসলামিক ফাউন্ডেশনে এখনো জামাতী আদর্শের লোক রয়ে গেছে। শুধু রয়েই যায়নি, ইসলামিক ফাউন্ডেশন এখনো জামাতী ভাবধারায় লোকরাই চালাচ্ছে। এর সত্যতা পাওয়া গেলো চাঁদপুরে গোয়েন্দা সংস্থার একজন সর্বোচ্চ কর্মকর্তার বক্তব্যের মধ্য দিয়ে।



চাঁদপুর জেলার এনএসআইর যুগ্ম পরিচালক মোহাম্মদ আজিজুল হক গতকাল রোববার জেলা উন্নয়ন সমন্বয় সভায় তাঁর বক্তব্যে বলেন, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের লাইব্রেরিতে এখনো মওদুদীর তাফহীমুল কোরআন পাওয়া যাচ্ছে। মাঠ পর্যায়ে আমাদের কাছে এ তথ্য আছে। এর দ্বারা আমরা কী বুঝতে পারছি? আমি আহ্বান জানাবো, অনতিবিলম্বে মওদুদীর ওইসব বিতর্কিত বই অপসারণ করা হোক।



এনএসআইর এই কর্মকর্তার বক্তব্যের প্রতি উপস্থিত সকলে সমর্থন জানিয়ে এ ব্যাপারে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে জেলা ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ডিডির প্রতি সভায় নির্দেশনা দেয়া হয়।


আজকের পাঠকসংখ্যা
৪৯১৬১২
পুরোন সংখ্যা