চাঁদপুর, সোমবার ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১ আশ্বিন ১৪২৬, ১৬ মহররম ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৫৯-সূরা হাশ্‌র


২৪ আয়াত, ৩ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


 


 


৫। তোমরা যে খর্জুর বৃক্ষগুলি কর্তন করিয়াছ এবং যেগুলি কা-ের উপর স্থির রাখিয়া দিয়াছ, তাহা তো আল্লাহরই অনুমতিক্রমে; এবং এইজন্য যে, আল্লাহ পাপাচারীদিগকে লাঞ্ছিত করিবেন।


 


 


assets/data_files/web

আকৃতি ভিন্ন ধরনের হলেও গৃহ গৃহই। -এন্ড্রি উল্যাং।


 


 


স্বদেশপ্রেম ঈমানের অঙ্গ।


 


 


ফটো গ্যালারি
মতলবে ৪টি মোটরসাইকেল পুড়ে যাওয়ার ঘটনা তদন্তে এএসপি সার্কেল ও ওসির ঘটনাস্থল পরিদর্শন
রেদওয়ান আহমেদ জাকির
১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


মতলব দক্ষিণ উপজেলা সদরের পূর্ব কলাদী এলাকায় (ছাত্তার মাস্টার মোড় সংলগ্ন) প্রবাসী মোহন মিয়ার বাসভবনের নিচ তলায় একটি কক্ষে থাকা চারটি মোটরসাইকেল রহস্যজনকভাবে পুড়ে যাওয়ার ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্যে ওই বাড়ির লোকজনকে গতকাল ১৫ সেপ্টেম্বর থানায় তলব করেছে মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ স্বপন কুমার আইচ। এদিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন এএসপি সার্কেল মোঃ আহসান হাবিব।



উল্লেখ্য, গত শুক্রবার রাতে প্রবাসী মোহন মিয়ার বাসভবনের নিচতলার একটি কক্ষে থাকা চারটি মোটরসাইকেল রহস্যজনকভাবে পুড়ে যায়। তন্মধ্যে শাহ্ সিমেন্টের মার্কেটিং অফিসার হাবিবুর রহমানের ১টি, সিনজেনটা বাংলাদেশ লিঃ-এর সেলস্ প্রমোশন অফিসার ওমর ফারুকের ১টি, ব্র্যাক কর্মী নাসিমার ১টি ও খুরশিদা বেগমের ১টি মোটরসাইকেল রয়েছে। এ ঘটনায় মোটর সাইকেল মালিক ওমর ফারুক বাদী হয়ে মতলব দক্ষিণ থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন।



মোহনের স্ত্রী মইফল বেগম ও এলাকাবাসী জানান, মোহন মিয়ার মালিকানাধীন ৩টি ভবনে ভাড়া থাকা বিভিন্ন কোম্পানীর কর্মীদের ১২টি মোটরসাইকেল একটি ভবনের নিচতলায় একটি কক্ষে রাখেন। শুক্রবার দিবাগত রাত চারটায় অপর ভবনের ৩য় তলায় থাকা এক ভাড়াটিয়া প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে দেখতে পায় ওই কক্ষটি থেকে আগুনের ধোঁয়া বের হচ্ছে। সাথে সাথে আগুন আগুন বলে চিৎকার দিলে আশ-পাশের লোকজন এসে ভবনের প্রধান ফটকের তালা এবং কক্ষের তালা ভেঙ্গে ভেতরে ঢুকে পানি দিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসেন। ভবনের প্রধান গেইট ও ওই কক্ষের দরজার তালা বন্ধ থাকা অবস্থায় ভিতরে মোটরসাইকেলগুলো পুড়ে যাওয়ার বিষয়টি নিয়ে নানা রহস্য দেখা দিয়েছে।



ক্ষতিগ্রস্ত ওমর ফারুক বলেন, ওই বাড়ির ভবনে আরও লোকজন ভাড়া থাকে। ভবনটির কলাপসিবল গেইট এবং মোটরসাইকেল রাখা কক্ষটিও তালাবদ্ধ ছিল। ভেতর থেকেই কে বা কারা শত্রুতা করে তাদের মোটরসাইকেলগুলো পুড়িয়ে দেয়। এ বিষয়ে আমি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছি।



মতলব দক্ষিণ থানার অফিসার ইনচার্জ স্বপন কুমার আইচ বলেন, গতকাল রোববার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। এ ঘটনায় ওই বাড়ির লোকজনকে থানায় তলব করা হয়েছে।



 



 


এই পাতার আরো খবর -
আজকের পাঠকসংখ্যা
৮৯৩২২৭
পুরোন সংখ্যা