চাঁদপুর, রোববার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১২ ফাল্গুন ১৪২৫, ১৮ জমাদিউস সানি ১৪৪০
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • -
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৪৭-সূরা মুহাম্মাদ


৩৮ আয়াত, ৪ রুকু, 'মাদানী'


০২। যাহারা ঈমান আনে, সৎকর্ম করে এবং মুহাম্মাদের প্রতি যাহা অবতীর্ণ হইয়াছে তাহাতে বিশ্বাস করে, আর উহাই তাহাদের প্রতিপালক হইতে প্রেরিত সত্য, তিনি তাহাদের মন্দ কর্মগুলি বিদূরিত করিবেন এবং তাহাদের অবস্থা ভাল করিবেন।


 


 


 


assets/data_files/web

মৌনতা নিরপেক্ষতার উত্তম পন্থা।


-শ্যামলচন্দ্র দত্ত।


 


 


 


 


যার দ্বারা মানবতা উপকৃত হয়, তিনিই মানুষের মধ্যে শ্রেষ্ঠ।


 


 


ফটো গ্যালারি
রাজারগাঁওয়ে একইস্থানে দুই পক্ষের মাহফিল সংঘর্ষের আশঙ্কা
স্টাফ রিপোর্টার
২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+

হাজীগঞ্জ উপজেলার ১নং রাজারগাঁও ইউনিয়নস্থ পশ্চিম রাজারগাঁও গ্রামে একইস্থানে একই তারিখে দু'টি মাহফিলের আয়োজন করায় সংঘর্ষের আশঙ্কা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে মাহফিলের গেট করা নিয়ে এক গ্রুপ অপর গ্রুপের ওপর হামলাও করে। এতে ৮/১০ জন আহত হয়েছেন। সামনে বড় ধরনের হামলার আশঙ্কা করছে এলাকাবাসী।

জানা গেছে, আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ও ১ মার্চ বৃহস্পতি ও শুক্রবার পশ্চিম রাজারগাঁও গ্রামে মরহুম মাওঃ মোবারক করিম কমপ্লেঙ্ ও ইবনে মাসউদ (রাঃ) আদর্শ নূরানি মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে দুইদিনব্যাপী ওয়াজ মাহফিলের আয়োজন করে কমপ্লেঙ্ কর্তৃপক্ষ। অপরদিকে একইস্থানে, একইদিনে ও একই সময়ে দুইদিনব্যাপী ইসলামী মহাসম্মেলনের আয়োজন করে হায়দার আলী হাজী কোরআনিয়া মাদ্রাসা মসজিদ কমপ্লেঙ্ কর্তৃপক্ষ। উভয় পক্ষই মাহফিলের জন্যে পোস্টার লিফলেটসহ প্রচার-প্রচারণা শুরু করে দিয়েছে। কিন্তু কোনো পক্ষই মাহফিলের জন্যে প্রশাসনিক অনুমতি নেয়নি। এ নিয়ে এলাকায় গত ক'দিন যাবৎ উত্তেজনা বিরাজ করছে। অভিযোগ পাওয়া গেছে, গত ২২ ফেব্রুয়ারি শুক্রবার সকালে এ মাহফিল নিয়ে এক গ্রুপ অপর গ্রুপের ওপর হামলা চালায়। জানা গেছে, হায়দার আলী কমপ্লেঙ্রে মোতাওয়াল্লী মাওঃ মোঃ সিদ্দিকুর রহমানের নেতৃত্বে মোতালেব বেপারী, নজির আহমেদ ও দুলাল গাজীসহ ২০/২৫ জন এসে মাওঃ মোবারক করিম কমপ্লেঙ্ গেইটের সাথে তাদের ওয়াজের গেইট নির্মাণ করতে গেলে মোবারক করিম কমপ্লেঙ্রে লোকজন বাধা দিলে সিদ্দিকুর রহমান গং তাদের ওপর হামলা চালায়। এতে আবু তাহের, আনোয়ার ঢালী, আবু জাফর, মোঃ ইব্রাহিম, (বাবু) ও সিদ্দিক বকাউলসহ ৮/১০ জন আহত হয়েছেন। সামনে আরো বড় ধরনের সংঘর্ষের আশঙ্কা করছে গ্রামবাসী। এ বিষয়ে প্রশাসনের জরুরি হস্তক্ষেপ কামনা করছেন তারা।

আজকের পাঠকসংখ্যা
৮৫৬২০২
পুরোন সংখ্যা