চাঁদপুর, মঙ্গলবার ৭ জানুয়ারি ২০২০, ২৩ পৌষ ১৪২৬, ১০ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • শাহরাস্তিতে ডাকাতি মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড ও ৪ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে চাঁদপুরের জেলা ও দায়রা জজ আদালত। || 
হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

৬০-সূরা মুমতাহিনা


১৩ আয়াত, ২ রুকু, মাদানী


পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহর নামে শুরু করছি।


১০। হে মু'মিনগণ ! তোমাদের নিকট মু'মিন নারীরা হিজরত করিয়া আসিলে তাহাদিগকে পরীক্ষা করিও; আল্লাহ তাহাদের ঈমান সম্বন্ধে সম্যক অবগত আছেন। যদি তোমরা জানিতে পার যে, তাহারা মু'মিন তবে তাহাদিগকে কাফিরদের নিকট ফেরত পাঠাইও না। মু'মিন নারীগণ কাফিরদের জন্য বৈধ নহে এবং কাফিরগণ মু'মিন নারীদের জন্য বৈধ নহে। কাফিররা যাহা ব্যয় করিয়াছে তাহা উহাদিগকে ফিরাইয়া দিও। অতঃপর তোমরা তাহাদিগকে বিবাহ করিলে তোমাদের কোন অপরাধ হইবে না যদি তোমরা তাহাদিগকে তাহাদের মোহর দাও। তোমরা কাফির নারীদের সহিত দাম্পত্য সম্পর্ক বজায় রাখিও না। তোমরা যাহা ব্যয় করিয়াছ তাহা ফেরৎ চাহিবে এবং কাফিররা ফেরৎ চাহিবে যাহা তাহারা ব্যয় করিয়াছে। ইহাই আল্লাহর বিধান; তিনি তোমাদের মধ্যে ফয়সালা করিয়া থাকেন। আল্লাহ সর্বজ্ঞ, প্রজ্ঞাময়।


 


 


বুদ্ধিজীবীরাই দেশের সম্পদ, তারাই দেশের সম্পদ তুলে ধরে।


-লংফেলো।


 


 


 


বিদ্যালাভ করা প্রত্যেক মুসলিম নর-নারীর জন্যে অবশ্য কর্তব্য।


 


 


ফটো গ্যালারি
এইচএসসি পরীক্ষা-২০২০
তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি
ফয়সাল আহম্মেদ ফরাজী
(পূর্ব প্রকাশিতের পর)
০৭ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


হ্যাকিং কী?



উত্তর : সাধারণত হ্যাকিং একটি প্রক্রিয়া যার মাধ্যমে কেউ কোনো বৈধ অনুমতি ব্যতীত কোনো কম্পিউটার বা কম্পিউটার নেটওয়ার্কে প্রবেশ করে। যারা হ্যাকিং করে তাদেরকে হ্যাকার বলা হয়।



 



কনভারজেন্স/ডিজিটাল কনভারজেন্স কী?



উত্তর : বিভিন্ন মাধ্যমের বিভিন্ন প্রযুক্তিকে একত্রিকরণ এবং কার্যকরভাবে পরিচালনা করাকে কনভারজেন্স বা ডিজিটাল কনভারজেন্স বলে। বর্তমােেন ডিজিটাল কনভারজেন্সে টেলিকমিউনিকেশন, ডাটা প্রসেসিং, ভয়েস ও ইমেজ যুক্ত রয়েছে।



 



স্প্যামিং কী?



উত্তর : ই-মেইল একাউন্টে প্রায়ই কিছু কিছু অচেনা ও অপ্রয়োজনীয় ই-মেইল পাওয়া যায় যা আমাদের বিরক্তি ঘটায়। এ ধরনের ই-মেইলকে সাধারণত স্প্যাম মেইল বলে। যখন কোনো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান নির্দিষ্ট কোনো একটি ই-মেইল অ্যাড্রেসে শতশত এমনকি লাখ লাখ মেইল প্রেরণের মাধ্যমে সার্ভারকে ব্যস্ত বা সার্ভারের কার্যক্রমের ক্ষতি করে বা মেমোরি দখল করে, তখন এ পদ্ধতিকে স্প্যামিং বলে।



 



সাইবার ক্রাইম কী?



উত্তর : ইন্টারনেটকে কেন্দ্র করে যে সকল কম্পিউটার ক্রাইম সংঘটিত হয় তাদেরকে সাইবার ক্রাইম বলে।



 



অনুধাবনমূলক প্রশ্ন ও উত্তরসমূহ



সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বলতে কী বোঝায়?



উত্তর : সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম হলো এমন একটি প্লাটফর্ম যেখানে মানুষ কম্পিউটার, স্মার্টফোন ইত্যাদি যন্ত্রের মাধ্যমে ইন্টারনেটের সাথে সংযুক্ত হয়ে ভার্চুয়াল কমিউনিটি তৈরি করে এবং ছবি, ভিডিও ও বিভিন্ন তথ্য শেয়ার করে থাকে। এছাড়া এ সকল মাধ্যমগুলোতে মানুষ স্বাধীনভাবে মতামতও প্রকাশ করতে পারছে। অতীতে সামাজিক যোগাযোগের প্রধান মাধ্যম ছিলো চিঠি। যার কারণে বিশ্বসাহিত্যের বড় একটা অংশ দখল করে আছে পত্রসাহিত্য। কিন্তু বর্তমানে সামাজিক যোগাযোগের জন্যে বিশ্বগ্রামের নাগরিকরা ব্যবহার করে ফেসবুক, টুইটার ইত্যাদি সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট। বিশ্বগ্রাম নাগরিকের সামাজিক যোগাযোগের সফল মাধ্যমই হলো ইন্টারনেটযুক্ত একটি কম্পিউটার।



 



তথ্যপ্রযুক্তিনির্ভর বিশ্বই বিশ্বগ্রাম ব্যাখ্যা করো।



উত্তর : বিশ্বগ্রাম হচ্ছে এমন একটি পরিবেশ যেখানে পৃথিবীর সকল মানুষ একটি একক সমাজে বসবাস করে এবং ইলেক্ট্রনিক মিডিয়া ও তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যেমে একে-অপরকে সেবা প্রদান করে থাকে।



 



মার্শাল ম্যাকলুহান হচ্ছেন বিশ্বগ্রামের জনক। বিশ্বগ্রামের সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে অবস্থান করেও প্রত্যেকেই একে-অপরের সাথে সহজেই খুব দ্রুত যোগাযোগ করতে পারে। যা তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহার ছাড়া সম্ভব নয়। তাই বলা যায়_তথ্যপ্রযুক্তিনির্ভর বিশ্বই বিশ্বগ্রাম।



 



ইন্টারনেটকে বিশ্বগ্রামের মেরুদ- বলা হয় কেনো?_ব্যাখ্যা করো।



অথবা, ইন্টারনেট ব্যবহারের ফলে পৃথিবী কীভাবে হাতের মুঠোয় এসেছে?_ব্যাখ্যা কর।



অথবা, বিশ্বগ্রাম হচ্ছে ইন্টারনেটনির্ভর ব্যবস্থা_ব্যাখ্যা করো।



উত্তর : বিশ্বগ্রাম হচ্ছে এমন একটি পরিবেশ যেখানে পৃথিবীর সকল মানুষ একটি একক সমাজে বসবাস করে এবং ইলেক্ট্রনিক মিডিয়া ও তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে একে-অপরকে সেবা প্রদান করে থাকে।



 



বিশ্বগ্রামের সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে অবস্থান করেও প্রত্যেকেই একে অপরের সাথে সহজেই খুব দ্রুত যোগাযোগ করতে পারে। এ যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম হলো কানেক্টিভিটি বা ইন্টারনেট। কানেক্টিভিটি বা ইন্টারনেট ব্যতীত সহজেই যোগাযোগ সম্ভব না। তাই ইন্টারনেটকে বিশ্বগ্রামের মেরুদ- বলা হয়।



শিক্ষাক্ষেত্রে অনলাইন লাইব্রেরির ভূমিকা বুঝিয়ে লিখো।



উত্তর : অনলাইন লাইব্রেরি বলতে এমন সব ওয়েবসাইটকে বুঝায় যেখানে সকল বইয়ের সমাহার থাকে এবং যেখান থেকে একজন ব্যবহারকারী যে কোনো সময় যে কোন বই বিনামূল্যে বা টাকার বিনিময়ে পড়তে পারে। ফলে একজন পাঠকের বই পড়ার জন্যে নির্দিষ্ট কোনো স্থানে যেতে হয় না এমনকি টাকাও খরচ করতে হয় না। অনলাইন লাইব্রেরির সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো_একটি বই বিশ্বের যে কোনো প্রান্ত থেকে যে কোনো সংখ্যক পাঠক যে কোনো সময় একসাথে পড়তে পারে।



 



'টেলিমেডিসিন এক ধরনের সেবা'-বুঝিয়ে লিখ।



অথবা, 'ঘরে বসে ডাক্তারের চিকিৎসা গ্রহণ করা যায়'_ব্যাখ্যা কর।



উত্তর : তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তির সাহায্যে কোনো ভৌগলিক ভিন্ন দূরত্বে অবস্থানরত রোগীকে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক, রোগ নির্ণয় কেন্দ্র, বিশেষায়িত নেটওয়ার্ক ইত্যাদির সমন্বয়ে স্বাস্থ্যসেবা দেয়াকে টেলিমেডিসিন বলা হয়। এ প্রযুক্তির সাহায্যে মানুষ এক দেশে অবস্থান করে ভিন্ন কোনো ভৌগলিক দূরত্বে অবস্থানরত বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের চিকিৎসা সেবা নিতে পারে। তথ্যপ্রযুক্তির উন্নতির ফলে বাংলাদেশের নাগরিকেরা মোবাইল ফোনের মাধ্যমে স্বাস্থ্যসেবা পাচ্ছে। অর্থাৎ টেলিমেডিসিন এক ধরনের সেবা যার সাহায্যে উন্নত চিকিৎসার জন্যে বিদেশে না গিয়েও বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নেয়া সম্ভব হচ্ছে। তথ্য প্রযুক্তির উন্নয়নের ফলে বাংলাদেশের গ্রামাঞ্চলের রোগীরা ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্র থেকে ভিডিও কনফারেন্সিং ব্যবহার করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিকট হতে টেলিমেডিসিন সেবা গ্রহণ করতে পারে।



 



ই-কমার্স পণ্যের ক্রয়-বিক্রয়কে কীভাবে সহজ করেছে? ব্যাখ্যা করো।



অথবা, 'আজকাল ঘরে বসে কেনাকাটা অধিকতর সুবিধাজনক'_ব্যাখ্যা করো।



উত্তর : বিশ্বগ্রাম ধারণায় ব্যবসা-বাণিজ্যের ব্যাপক পরিবর্তন হয়েছে। এখন ক্রেতা-বিক্রেতাকে পণ্য ক্রয়-বিক্রয়ের জন্যে এক গ্রাম থেকে অন্য গ্রামে কিংবা এক দেশ থেকে অন্য দেশে যেতে হয় না। ক্রেতা বা ভোক্তা বাসায় বসে ইন্টারনেট এর সাহায্যে কোনো ই-কমার্স ওয়েবসাইট থেকে পণ্য বা সেবা পছন্দ করে ক্রয় করেতে পারছে এবং অনলাইনে মূল্য পরিশোধ করতে পারছে। যাকে অনলাইন শপিং বলা হয়। ইলেকট্রনিক কমার্স বা ই-কমার্স একটি বাণিজ্যক্ষেত্র যেখানে ইন্টারনেট বা অন্য কোন কম্পিউটার নেটওয়ার্কের মাধ্যমে পণ্য বা সেবা ক্রয়-বিক্রয় বা লেনদেন হয়ে থাকে। ই-কমার্সের প্রধানতম সুবিধা হলো সময় ও ভৌগলিক সীমাবদ্ধতা দূর করে অর্থাৎ ঘরে বসে যে কোনো পণ্য ক্রয়-বিক্রয় করা যায় এবং ক্রয়-বিক্রয়কৃত পণ্যের মূল্য পরিশোধ করা যায়।



 



'ঘরে বসে অর্থ উপার্জন করা যায়'_ব্যাখ্যা করো।



অথবা, বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের জন্যে এখন আর বিদেশে যাওয়ার দরকার নেই_ব্যাখ্যা করো।



উত্তর : তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি ব্যবহারের ফলে দেশ এবং বিদেশে ব্যাপক কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। ফ্রিল্যান্সিং কর্মসংস্থানের নতুন দ্বার উন্মোচন করেছে। ফ্রিল্যান্সিংয়ের মাধ্যমে দেশে বসে বৈদেশিক মুদ্রা উপার্জনেরও সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। কোনো প্রতিষ্ঠানের সাথে দীর্ঘস্থায়ী চুক্তি না করে, স্বাধীনভাবে নিজের দক্ষতা অনুযায়ী কোনো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের চাহিদা অনুযায়ী কাজ করাকে বলা হয় ফ্রিল্যান্সিং। ফ্রিল্যান্সিং করার জন্য কোনো একটি বিষয়ে দক্ষতা অর্জন করতে হয়। তারপর ইন্টারনেট ব্যবহার করে বিভিন্ন জব প্ল্যাটফর্মে (upwork.com, fiverr.com, freelancer.com) প্রজেক্টভিত্তিক কাজের আবেদন করে কাজ পাওয়া যায়। এভাবে দেশ বা দেশের বাইরের কোন কোম্পানি বা ব্যক্তির কাজ ঘরে বসেই করা যায় এবং অর্থ উপার্জন করা যায়।



 



'আইসিটি শিক্ষায় শিক্ষিত জনবলের জন্যে উপার্জনের ক্ষেত্রে সহজ সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে'_ব্যাখ্যা করো।



উত্তর : আইসিটি শিক্ষায় শিক্ষিত যে কোনো ব্যক্তি ফ্রিল্যান্সিংয়ের মাধ্যমে সহজেই উপার্জন করতে পারছে। কোনো প্রতিষ্ঠানের সাথে দীর্ঘস্থায়ী চুক্তি না করে, স্বাধীনভাবে নিজের দক্ষতা অনুযায়ী কোনো ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের চাহিদা অনুযায়ী কাজ করাকে বলা হয় ফ্রিল্যান্সিং। কোনো ব্যক্তি যদি আইসিটির বিভিন্ন শাখা যেমন : গ্রাফিঙ্, ওয়েবডিজাইন ও ডেভলপমেন্ট ইত্যাদি এর যে কোনো একটি বিষয়ের উপর দক্ষতা অর্জন করে। তাহলে ঘরে বসেই ইন্টারনেট ব্যবহারের মাধ্যমে ফ্রিল্যান্সিং করে সহজেই অর্থ উপার্জন করতে পারবে।



 



বাস্তবে অবস্থান করেও কল্পনাকে ছুঁয়ে দেখা সম্ভব_ব্যাখ্যা করো।



উত্তর : ভার্চুয়াল রিয়েলিটি প্রযুক্তির ক্ষেত্রে 'বাস্তবে অবস্থান করেও কল্পনাকে ছুয়ে দেখা সম্ভব' উক্তিটি যথাযথ। হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যার সমন্বয়ে কম্পিউটার সিস্টেমের মাধ্যমে কোনো একটি পরিবেশ বা ঘটনার বাস্তবভিত্তিক বা ত্রিমাত্রিক চিত্রভিত্তিক রূপায়ন হলো ভার্চুয়াল রিয়েলিটি। এ প্রযুক্তিতে কম্পিউটার প্রযুক্তির মাধ্যমে কৃত্রিম পরিবেশকে এমনভাবে তৈরি ও উপস্থাপন করা হয়, যা ব্যবহারকারীর কাছে সত্য ও বাস্তব বলে মনে হয়।



 



এই প্রযুক্তির মাধ্যমে কৃত্রিম পরিবেশে বিশেষ পোশাক পরিধান করে বাস্তবে নয় ত্রিমাত্রিক গ্রাফিঙ্ প্রযুক্তির মাধ্যমে কম্পিউটারের পর্দায় যেমন গাড়ি চালানো অভিজ্ঞতা অর্জন করা যায়। ঠিক তেমনি বাস্তবে অবস্থান করে চাঁদে যাওয়ার মতো কল্পনাকেও ছুঁয়ে দেখা যায়। (চলবে)



 



লেখক : প্রভাষক, ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল কলেজ, চাঁদপুর। মোবাইল ফোন : ০১৮১৮৭০৩৭৪২।



 



 



 


আজকের পাঠকসংখ্যা
৯২৮৪২৮
পুরোন সংখ্যা