চাঁদপুর। বৃহস্পতিবার ২৩ জুন ২০১৬। ৯ আষাঢ় ১৪২৩। ১৭ রমজান ১৪৩৭
jibon dip

সর্বশেষ খবর :

  • --
রাজরাজেশ্বরে গো-খামারিরা আতঙ্কে
নিজস্ব সংবাদদাতা
২৩ জুন, ২০১৬ ০০:০০:০০
প্রিন্টঅ-অ+


চাঁদপুর সদর উপজেলার রাজরাজেশ্বর ইউনিয়নের গো-খামারিরা গরু চুরির আতঙ্কে নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছেন। এখানে দিনে-রাতে গরু চুরি হয়। বিশেষ করে সামনে কোরবানি এ জন্যই গরু চুরি এই সময়টাতে বেশি হয়।



এলাকাবাসী জানায়, এখানকার বেশির ভাগ লোক কৃষি কাজ করে। প্রতিটি পরিবারে দুই চারটি গরু-ছাগল পালন করে। কারো কারো গরু মোটা তাজাকরণ ফার্ম আছে। আমরা সবাই দিনের বেলা চরে গরু ছেড়ে দেই। আবার সন্ধ্যায় বাড়িতে নিয়ে যাই। ইদানীং রাতেতো চুরি হয়ই, আবার দিনেও চর থেকে ট্রলারযোগে গরু চুরি করে নিয়ে যায়। এজন্যে চরে গরু ছেড়ে দেয়ার পর সাথে সাথে থাকতে হয়, এভাবেই কথাগুলো বললো কিশোর রাসেল। তাদের খামারে ২৫ টি গরু আছে। এগুলোর দেখাশুনা রাসেলই করেন। সে জানায় পড়া-লেখা বাদ দিয়ে এ কাজ নিয়ে সারাদিন মাঠেই থাকি।



অপরদিকে ষাটোর্ধ্ব এক বৃদ্ধ বলেন, মার্চ মাসে নির্বাচনের সময় কয়েকটি গরু চুরি হয়েছে। লগি্গমারা গ্রামের মৃত আঃ মান্নান মিয়ার ছেলে ছমিদ আলির ও মৃত মুজাম্মেল সরকারের ছেলে আলাউদ্দিনেরও গরু চোরে নিয়ে গেছে।



এ ব্যাপারে রাজরাজেশ্বর ইউপি চেয়ারম্যানের সাথে মুঠোফোনে কথা বলার জন্য একাধিকবার চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি। পরে কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সভাপতি মাওঃ এএইচএম হাবিবুল্লাহর সাথে কথা হলে তিনি বলেন, আমাদের এলাকায় এ সময়টাতে আগে-পরে চুরির ঘটনা ঘটেছে। এ ব্যাপারে কমিউনিটি পুলিশ, চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের নিয়ে পরামর্শ সভা করবো। তবে আমাদের এলাকায় একটি পুলিশ ফাঁড়ি দরকার। এসপি স্যার এলাকায় এসেছিলেন। আমরা স্যারকে অবগত করেছি। পুলিশ ফাঁড়ি হলে আইন শৃঙ্খলা অনেক ভালো হতো।



 


হেরার আলো
বাণী চিরন্তন
আল-হাদিস

২৪-সূরা নূর

৬৪ আয়াত, ৯ রুকু, ‘মাদানি’

পরম করুণাাময় ও অসীম দয়ালু  আল্লাহর নামে শুরু করছি।

২০। তোমাদের প্রতি আল্লাহর অনুগ্রহ ও দয়া না থাকিলে তোমাদের কেহই অব্যাহতি পাইতো না এবং আল্লাহ দয়ার্দ্র ও পরম দয়ালু।

দয়া করে এই অংশটুকু হেফাজত করুন

 


সংসারে আনন্দময় পরিবেশ ভালো কিছু করার প্রেরণা যোগায়। 


-জন মেসাভল্ড।


স্বভাবে ন¤্রতা অর্জন কর।

-হযরত মুহাম্মদ (সাঃ)


ফটো গ্যালারি
করোনা পরিস্থিতি
বাংলাদেশ বিশ্ব
আক্রান্ত ৪,৩৬,৬৮৪ ৫,৫৪,২৮,৫৯৬
সুস্থ ৩,৫২,৮৯৫ ৩,৮৫,৭৮,৭০৩
মৃত্যু ৬,২৫৪ ১৩,৩৩,৭৭৮
দেশ ২১৩
সূত্র: আইইডিসিআর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
আজকের পাঠকসংখ্যা
১৭৮৪৩৫
পুরোন সংখ্যা